মোবাইলের ক্যামেরা দিয়ে ভিডিওগ্রাফি করার কিছু টিপস

মোবাইলের ক্যামেরা দিয়ে ভিডিওগ্রাফি করার কিছু টিপস

নিউজ ও ইভেন্ট

মোবাইল ফোনের ক্যামেরা দিন দিন যথেষ্ট মানসম্মত হচ্ছে এমনকি মিড রেঞ্জ বাজেটের মোবাইল গুলোতে ভালো ক্যামেরা দেখতে পাওয়া যায়। আপনি মোটামুটি মানের একটি ভালো ভিডিও রেকর্ড করে ফেলতে পারবেন যদি আপনি জানেন আপনি কিভাবে রেকর্ড করতে যাচ্ছেন। আমরা আজকে আলোচনা করবো কিভাবে একটি মোবাইল ফোন দিয়ে যথোপযোগী ভিডিও করা যায় যা অনলাইন মার্কেটিং এর ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন রাখতে পারেঃ

প্রথমেই আমাদের যে যন্ত্রের প্রয়োজন হবে সেটি ট্রাইপড

ট্রাইপড এক ধরনের মোবাইল ফোন ক্যামেরা হোল্ডার যাতে করে মোবাইল ফোনের ক্যামেরা স্ট্যাবল রাখে। ভিডিওর মান ভালো করতে হলে অবশ্যই ক্যামেরাটা যেন নড়াচড়া না করে বা ফিক্সড পজিশনে থাকে সেই বিষয়টি লক্ষ্য করতে হবে।

এছাড়াও ভিডিও ক্ষেত্রে আওয়াজ বা সাউন্ড বেশি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে এক্ষেত্রে আমাদের একটি এক্সট্রা মাইক্রোফোন প্রয়োজন পড়বে। যদি আপনি এক্সট্রা সময় মাইক্রোফোন কিনতে না চান তবে আপনি আপনার মোবাইলের হেডফোনের মাইক্রোফোন টি ইউজ করতে পারে। এটি আপনার ভিডিওর সাউন্ড এর নয়েজ কমিয়ে দেবে। ভিডিও ধারণ করার সময় আশেপাশের যে আওয়াজ সেটি যেন আপনার ভিডিওর আওয়াজ বা সাউন্ড এর সাথে মিলে মিশে না যায়।

এরপর প্রয়োজন পড়বে সেটা একটু ভালো লাইট কন্ডিশনের। অর্থাৎ যদি আপনার ঘরের বাইরে শুট করেন বা দিনের আলোতে শুুট করেন তবে তেমন কোনো অসুবিধা হবে না আপনি একটি ভাল ব্যাকগ্রাউন্ড পছন্দ করে নিবেন।

ঘরের ভেতরে অর্থাৎ ইন্ডোর এক্ষেত্রে আপনাকে লাইটিং এর ব্যাপারটি লক্ষ্য রাখতে হবে। যদি লাইট বা আলোর অবস্থা ভালো না হয়ে থাকে তবে ভিডিওর মান পুরোপুরি খারাপ হয়ে যেতে পারে লাইটিং কন্ডিশন বা আলোর অবস্থান ভিডিওর ক্ষেত্রে অধিকতর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।মোবাইল ফোন দিয়ে ভিডিও রেকর্ড শুরু করার আগে আপনাকে আরো বিশেষ কিছু বিষয় লক্ষ্য রাখতে হবে তার মধ্যে অন্যতম হলোঃ

১.মোবাইল ফোনের ক্যামেরাতে যেনো কোন ডাস্ট বা ময়লা লেগে না থাকে সেটা আপনাকে পরিষ্কার করে নিতে হবে।

২.দ্বিতীয় তো মোবাইল ফোনটা সাইলেন্ট করে নিন যেনো আপনি ভিডিওটা করার সময় ভিডিও সংশ্লিষ্ট আওয়াজটাই শুধু মোবাইল ফোনে রেকর্ড হয়।

৩.এরপরে আমাদের যেটা প্রয়োজন হবে সেটা একটি ভালো ব্যবহারের ক্যামেরা অ্যাপ। প্রফেশনাল ক্যামেরা অ্যাপ যা আপনি গুগল প্লে স্টোর থেকে পেয়ে যাবেন। নিচে কয়েকটি অ্যাপ এর নাম আমরা আপনাদের সুবিধার্থে উল্লেখ করে দেয়া হলোঃ

– Open camera

– filmic Pro

– footage camera

রেকর্ডিং শুরু করার পূর্বে আমাদের ক্যামেরার সেটিং গুলো দেখে নিতে হ।।

আপনি ভিডিওটি কোন রেজুলেশনে রেকর্ড করতে চাচ্ছে??

HD না কি FHD?

আপনার ক্যামেরার সেইম রেট কত হ??

#ISO কেমন দিবেন?

আপনাদের জানা সুবিধার জন্য বলে দেই ISO যতই কম হবে ততই ভিডিও মানটি ভালো হবে এবং ভিডিওতে noise পরিমাণ কম হবে।

Frame Rate, স্ট্যান্ডার্ড মেনে 25 দিয়ে রেকর্ড করলে মোবাইল ফোনের ভিডিও গুলো ভালো ভাবে ধারন করা যায়

এরপর আলোচনা করবো White Blance নিয়ে ;

white Balance এর মাধ্যমে আপনার অবজেক্টে আপনি কতটুক প্রাকৃতিক ভাবে উপস্থাপন করতে চান তা নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন। আপনার ক্যামেরার অ্যাপ এর হোয়াইট ব্যালেন্সিং অপশন গুলো একটি একটি করে অন করে দেখে নিন কোনটা আপনার অবজেক্ট এর জন্য সুইটেবল হয়।

এরপর আলোচনা হবে focus mode নিয়েঃ

আপনি যদি ক্যামেরা তে অবজেক্ট হিসেবে নিজের ফেইস কিংবা অন্য কারো ফেইস শুট করতে চান তবে ফোকাস মুড এ ফেইস ডিটেকশন টা অন করে দিন। অবজেক্ট যদি moving না হয়ে থাকে Steel object হয়ে থাকে তবে touch to focus অন করে দিন।

এই সকল বিষয়ের উপর লক্ষ্য রাখলে আপনি ভাল মানের ভিডিও মোবাইল ফোন দিয়ে ধারন করতে পারবেন।

For You, With You, For Ever…. 

সমাহার ডট নেট-এর  পণ্য সামগ্রী ও সেবা পেতে রিসেলার, সেলার সেন্টারে সরাসরি যোগাযোগ করুন।

  • অ্যাপ, সফটওয়্যার, ওয়েবসাইট, ডিজিটাল মার্কেটিং ও ডোমেইন হোস্টিং রেজিস্টেশন করা হয়।
  • নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী, ফ্যাশন, পারফিউম, মেডিসিন, মোবাইল ফোন, কম্পিউটার, ল্যাপটপ, ফ্রিজ, টিভি, ক্যামেরা, মোটরবাইক, আসবাবপত্র, এপার্টমেন্ট, বাণিজ্যিক এবং আবাসিক প্রপাটির পাশাপাশি জমি ও প্লট সুলভ মূল্যে বিক্রি করা হয়। ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও সাধারণ ভোক্তাদের জন্য নিবেদিত বিভিন্ন রকমের সার্ভিসগুলো দেয়া হয়।
  • আমাদের রিসেলার হয়ে অবসর সময়ে বিনিয়োগ ছাড়া, দৈনিক শুধু ৩-৪ ঘন্টা সময় দিয়ে নিশ্চিত পেসিভ ইনকাম করুন। ৬/৭ মাস নিয়মিত সময় দিলে অবশ্যই মাসিক ৩০ থেকে ৫০ হাজার টাকা ইনকামের নিশ্চয়তা রয়েছে।
  • আকর্ষণীয় কমিশনে ডিলার, এজেন্ট ও সেলার সেন্টার দেয়া হচ্ছে…

এছাড়াও আপনি আপনার ব্যবসার জন্য ট্রেডিশনাল মার্কেটিং অথাৎ সরাসরি আপনার ব্যবসার প্রচার করাতে চাইলে। সমাহার ডট নেট এর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন। যেখান থেকে আপনি আপনার ব্যবসার জন্য খুবই কম খরচে ডিজিটাল মার্কেটিং অথবা ট্রেডিশনাল মার্কেটিং করাতে পারবেন। এছাড়া ও সমস্ত প্রকার ডিজিটাল অথবা ট্রেডিশনাল সুবিধা নিতে পারবেন।

আপনি যদি আপনার ব্যবসাকে কি ভাবে অনলাইনে নিয়ে যাবেন বা ব্যবসাকে বড় করবেন অথাৎ ব্যবসার প্রসার ঘটাবেন তা জানতে চান তবে , সময় নষ্ট না করে এখুনি  রিসেলার, সেলার সেন্টারে সরাসরি যোগাযোগ করুন।  তার জন্য আপনাকে কোনো টাকা খরচ করতে হবে না। সম্পূর্ণ ফ্রীতে আপনি পরামর্শ পাবেন।

আশা করি এই পোস্টটি আপনাকে দরকারী কিছু তথ্য দিয়েছে। পরবর্তী পোস্ট পাওয়ার জন্য সাথেই থাকুন

Leave a Reply