যেসব লক্ষণে বুঝবেন মস্তিষ্কের রোগ, কী করবেন?

Article Lifestyle বাংলাদেশ

পারকিনসন মস্তিষ্কের এক বিশেষ রোগ। মারণব্যাধি রোগগুলোর মধ্যে পারকিনসন একটি। অ্যালজেইমার রোগের পর এটি দ্বিতীয় সর্বাধিক নিউরো ডিজেনারেটিভ রোগ। 

একটি সমীক্ষা অনুযায়ী, সমগ্র বিশ্বে মোট জনসংখ্যার ১০ মিলিয়ন মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন এই রোগে। মারা গেছেন কয়েক হাজার মানুষ। 

পারকিনসন রোগ কী? 

পারকিনসন রোগ এক প্রকার নিউরো ডিজেনারেটিভ বা স্নায়ুর অধঃপতনজনিত রোগ। নিউরো ডিজেনারেটিভ মানে নিউরনের অধঃপতন বা মৃত্যু। এই রোগ সম্পূর্ণ নিরাময়ের কোনো সঠিক প্রক্রিয়া নেই। 

এই রোগের লক্ষণ-

১. হাত, পা, মাথা এবং মুখের থুতনি ও চোয়াল কেঁপে ওঠা। 

২. শরীরের ভারসাম্য নষ্ট হয়ে যাওয়া। 

৩. হাত-পা ও শরীরের মাংসপেশি শক্ত হয়ে যাওয়া। 

৪. হাঁটাচলা ক্রমশ ধীরগতি হয় এবং জড়তা দেখা দেয়। 

৫. গলার স্বরের পরিবর্তন লক্ষ্য করা যায়। 

৬. স্মৃতিশক্তি কমতে থাকে। ভুলে যাওয়ার প্রবণতা ধীরে ধীরে বাড়তে থাকে। 

৭. কোষ্ঠকাঠিন্য বা চামড়ার নানাবিধ সমস্যা দেখা দেয়। 

৮. ঘ্রাণশক্তি হারিয়ে ফেলে।

৯. কখনও ঘুম বেশি হওয়া বা একেবারে ঘুম না হওয়ার লক্ষণ দেখা দেয়। 

১০. যৌন ক্ষমতা হারিয়ে ফেলা। 

১১. খাবার গিলতে সমস্যা ও অনিয়ন্ত্রিত মূত্রত্যাগ। 

কী করবে?

১. নিয়মিত শরীরচর্চার মাধ্যমে দিন শুরু করুন। 

২. সাঁতার ও সাইক্লিং করতে হবে। 

৩. হাত,পা, ঘাড় ও শ্বাস-প্রশ্বাসের ব্যায়াম করতে হবে। 

৪. পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি ও ভিটামিন যুক্ত সুষম খাদ্য গ্রহণ করতে হবে। 

৫.  ভিটামিন ডি ও সি যুক্ত খাবার বা ওষুধ সেবন করুন। কারণ এটি পারকিনসন রোগ প্রতিরোধে সাহায্য করে।

সূত্র: স্কাইবোল্ড

Leave a Reply